শনিবার জগন্নাথপুরে আসছেন পরিকল্পনামন্ত্রী, থাকছেন ব্যারিস্টার সুমনও

মো. জাকারিয়া আহমদ :: সুনামগঞ্জের জগন্নাথপুরে আসছেন পরিকল্পনামন্ত্রী এমএ মান্নান এমপি।

সুনামগঞ্জ-৩ আসনের এ সাংসদ আগামী শনিবার (৩১ আগস্ট) জগন্নাথপুরের মীরপুর ইউনিয়নের শ্রীরামসি বাজারে `শ্রীরামসি আঞ্চলিক গণহত্যা’ দিবস উপলক্ষ্যে আয়োজিত সভায় প্রধান অতিথির ভাষন দেবেন।

Advertisement

স্বচ্ছ রাজনৈতিক খ্যাত ভাটি অঞ্চলের উন্নয়নের রূপকার এমএ মান্নানের সঙ্গে একই অনুষ্ঠানে প্রধান বক্তার বক্তব্য রাখবেন দেশের সোস্যাল মিডিয়ার জনপ্রিয় ব্যক্তিত্ব তারুণ্যের অহংকার সুপ্রিম কোর্টের আলোচিত আইনজীবী ও যুদ্ধাপরাধ ট্রাইব্যুনালের প্রসিকিউটর ব্যারিস্টার সৈয়দ সায়েদুল হক সুমন।

এ তথ্য সিলেটের কণ্ঠ ডটকমকে  নিশ্চিত করেছেন স্থানীয় আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক বাবুল মিয়া ও শ্রীরামসি শহীদ স্মৃতি সংসদের সাধারণ সম্পাদক মাহবুব হোসেন।

Advertisement

মাহবুব হোসেন সিলেটের কণ্ঠকে বলেন, আমরা দেশ স্বাধীন হওয়ার পর অর্থাৎ ১৯৮৬ সাল থেকে শহীদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে আমাদের সংগঠন ‘শ্রীরামসি শহীদ স্মৃতি সংসদ’ এর উদ্যোগে দোয়া ও মিলাদ মাহফিল, শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পন, শোকসভা, মেধা বৃত্তি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ শিক্ষার্থীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ ও আলোচনাসভা করে থাকি। প্রতি বছরের ন্যায় এবারও আয়োজন করেছি। এবার আামাদের স্থানীয় সংসদ সদস্য মাননীয় পরিকল্পনা মন্ত্রী এমএ মান্নান এমপি মহোদয় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন। এছাড়া দেশের জনপ্রিয় আইনজীবী ব্যারিস্টার সায়েদুল হক সুমনও থাকবেন।

জানা গেছে, স্বাধীনতার যুদ্ধের সময় আজকের এই দিনে সুনামগঞ্জ জেলার জগন্নাথপুর উপজেলার মীরপুর ইউনিয়নের শ্রীরামসি গ্রামে শান্তিপ্রিয় এলাকাবাসীকে গণহত্যার শিকার হতে হয় পাক-হানাদার বাহিনী ও রাজাকার বাহিনীর হাতে। এই দিনে সকাল অনুমান ১০ টায় পাকিস্তানী হানাদার বাহিনী বেশ কয়েকটি নৌকাযোগে স্থানীয় শ্রীরামসি বাজারে আসে এবং রাজাকার বাহীনির সহযোগিতায় শ্রীরামসি উচ্চ বিদ্যালয়ে নির্মম এক হত্যাযজ্ঞ চালিয়ে ছিল।

স্থানীয় রাজাকার আহমদ আলীসহ বেশ কয়েকজন রাজাকার দ্বারা শ্রীরামসি গ্রামবাসীকে শান্তি কমিটির সভা বলে খবর দিয়ে ডেকে আনা হয় তৎকালীন শ্রীরামসি হাই স্কুল (শ্রীরামসি স্কুল এন্ড কলেজ)-এ ; তখন তাঁরা শান্তির আশায় জড়ো হন বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে। যে বা যারা সেখানে আসতে চাননি রাজাকার দ্বারা বাড়ি থেকে আনা হয় তাদেরও।

এক পর্যায়ে পাক হানাদার বাহিনী ও রাজাকারদের সমন্বয়ে ১০-১৪ জন করে হাত-পা বেঁধে লাইন ধরিয়ে নিরপরাধে ১২৬ জন লোককে হত্যা করে। এমনকি তাঁরা কয়েক শতাধিক বাড়ী-ঘর জ্বালিয়ে পুড়িয়ে দেয়। আর সেই দিনের হত্যাযজ্ঞ স্মরণ রাখার জন্য ১৯৮৬ সালের ৩১ আগস্ট সর্বপ্রথম শ্রীরামসি আঞ্চলিক শহীদ দিবস পালন করা হয়।

Advertisement

সংবাদটি শেয়ার করতে নিচের অপশনে ক্লিক করুন

এ জাতীয় আরও সংবাদ 👇



বিশ্বজুড়ে করোনাভাইরাস

বাংলাদেশে

আক্রান্ত
৪৭,১৫৩
সুস্থ
৯,৭৮১
মৃত্যু
৬৫০

বিশ্বে

আক্রান্ত
৬,২১০,০৪৫
সুস্থ
২,৭৭০,৩২৫
মৃত্যু
৩৭২,০৭৮


সাহরি ও ইফতারের সময় সূচি

সাহরি ও ইফতারের সময়সূচী
( রবিবার,৩১ মে ২০২০ )
 বিভাগ
 সাহরি শেষ
 ইফতার
 ঢাকা
 ০০:০০ মিঃ
 ০০:০০ মিঃ
 চট্টগ্রাম
 ২৩:৫৮ মিঃ
 ২৩:৫২ মিঃ
 সিলেট
 ২৩:৫১ মিঃ
 ২৩:৫৬ মিঃ
 রাজশাহী
 ০০:০৫ মিঃ
 ০০:০৮ মিঃ
 বরিশাল
 ০০:০২ মিঃ
 ২৩:৫৮ মিঃ
 খুলনা
 ০০:০৬ মিঃ
 ০০:০২ মিঃ
 রংপুর
 ২৩:৫৯ মিঃ
 ০০:০৬ মিঃ
 ময়মনসিংহ
 ২৩:৫৭ মিঃ
 ০০:০১ মিঃ

Facebook Page


Scroll Up